ফসলি জমি রক্ষার্থে হাজারও কৃষকের আন্দোলন

আমাদের প্রতিদিন
2024-06-18 15:01:31

হিলি (দিনাজপুর) প্রতিনিধি:

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে আশুরার বিলে আবাদি জমি রক্ষায় এবং বাধ নির্মানের প্রতিবাদে ভুক্তভোগী হাজারও কৃষক আন্দোলন করেছেন। বুধবার (৩০ নভেম্বর) দুপুরে আশুরার বিলে আবাদি জমি রক্ষায় এবং বাধ নির্মানের প্রতিবাদে আন্দোলন করেন তারা।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, নারী-পুরুষ, বৃদ্ধ, শিশু-কিশোর বিলের পুরনো বাধে ব্যানার পোস্টার হাতে নিয়ে আন্দোলন করছে। নতুন করে আশুরার বিলে বাধ স্থাপনের করলে কয়েক হাজার বিঘা জমিতে ধান আবাদ থেকে তারা বঞ্চিত হবেন। প্রায় ২ হাজার হেক্টর এলাকা জুড়ে নবাবগঞ্জ উপজেলার এই আশুরার বিল। নাম বিল হলেও দেখতে নাদীর মতো। বিলের পানি শুকিয়ে গেলে সেখানে ধানের আবাদ করে জীবিকা নির্বাহ করে বিলপাড়ের কয়েক হাজার মানুষ।

ভুক্তভোগী কৃষকরা বলেন, বাপ-দাদার আমল থেকে আমরা এই বিলের জমি চাষাবাদ করে জীবিকা নির্বাহ করে আসছি। পানি উন্নয়ন বোর্ড নতুন করে বাধ এবং ড্রেন তৈরি করতে চায়। এটা আমরা হতে দিবো না। আমরা চাই বিলের মাঝখানে আগের পুরনো ড্রেনটি তারা খনন করুক। এতে আমাদের অনেক উপকার হবে। এই বিলের জমি রক্ষার্থে আমরা প্রয়োজনে জীবন দিয়ে দিবো। যতদিন আমাদের দাবি না মানা হবে ততদিন আমাদের আন্দোলন চলমান থাকবে।

তারা আরও বলেন, এই বিলের জমিই আমাদের একমাত্র অবলম্বন। বিলের জমি চাষাবাদ করে আমাদের জীবন চলে। নতুন করে বাধ নির্মাণ করলে ধানের জমি নষ্ট হবে। আবাদ না করলে ছেলে-মেয়েদের নিয়ে চলব কি করে। বাধ নির্মাণ করলে এই বিলে পানি জমে থাকবে। আবার ফসলের জমি কমে যাবে।

সপ্তম শ্রেনীর ছাত্রী রোবিনা ইয়াসমিন বলে, আমি লিখাপড়া করি। বাবা এই বিলের জমি আবাদ করে আমাদের সংসার চালায়। আবাদ না হলে আমার লিখা পড়া বন্ধ হয়ে যাবে। আমার সপ্ন বড় লেখাপড়া করে বড় হয়ে আমি ডাক্তার হবো। যদি জমি না থাকে তবে আমার সপ্ন নষ্ট হয়ে যাবে।