৬ আষাঢ়, ১৪৩১ - ২০ জুন, ২০২৪ - 20 June, 2024
amader protidin

মিঠাপুকুর উপজেলাকে ভূমিহীন মুক্ত ঘোষণা করলেন প্রধানমন্ত্রী

আমাদের প্রতিদিন
1 week ago
25


মিঠাপুকুর (রংপুর) প্রতিনিধি:

রংপুরের সর্ববৃহৎ উপজেলা মিঠাপুকুরকে গৃহহীন ও ভূমিহীন মুক্ত ঘোষনা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। মঙ্গলবার ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে যুক্ত হয়ে তিনি এই ঘোষণা দেন। এ পর্যন্ত মিঠাপুকুরে ১ হাজার ২ শ ৮৬ জন গৃহহীন ও ভূমিহীন মানুষকে বাড়ি ও ২ শতক জমি প্রদান করা হয়েছে। এছাড়াও  মঙ্গলবার মিঠাপুকুর  উপজেলায় আশ্রয়ণ প্রকল্প-২-এর অধীনে পঞ্চম পর্যায়ের দ্বিতীয় ধাপে ২০৭টি পরিবারকে জমিসহ ঘর হস্তান্তর করা হয়।

মঙ্গলবার (১১ জুন) সকালে  প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবন থেকে অডিটোরিয়াম হলে  যুক্ত হন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এ সময় নতুন ২৯৫টি ঘরের মধ্যে ২০৭ টি ধাপ উদয়পুর ব্যারাকে ১১০টি মোট ৩১৭ টি পরিবারকে জমিসহ ঘর হস্তান্তর এবং এই এই উপজেলাকে ভূমিহীন ও গৃহহীনমুক্ত ঘোষণা করেন তিনি। ইতোমধ্যে মিঠাপুকুর উপজেলায় ১১৮৬ জনকে জমিসহ গৃহ হস্তান্তর করা হয়েছে।

মিঠাপুকুর  উপজেলা নির্বাহী  অফিসার বিকাশ চন্দ্র বর্মন বলেন, নির্বাচিত উপকারভোগীদের মাঝে বাড়ি ও জমির দলিল হস্তান্তর করা হলো হয়েছে। এরফলে মিঠাপুকুর উপজেলায় তালিকাভুক্ত আর কোনও ভূমিহীন পরিবার না থাকায় ভূমিহীন-গৃহহীন মুক্ত ঘোষণা করা হয়েছে।

মিঠাপুকুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান কামরু বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা  আশ্রয়ণ প্রকল্পের মাধ্যমে গৃহ ও ভূমিহীনদের ঘর ও জমির মালিকানা দেওয়ার উদ্যোগ অত্যন্ত প্রশংসনীয়। মিঠাপুকুরকে ভূমিহীন ও গৃহহীন মুক্ত ঘোষণ করায় আমরা কৃতজ্ঞ।

প্রকল্পের আওতায় ভূমিহীন ও গৃহহীন প্রতিটি পরিবারকে দুই দশমিক ৫ শতাংশ জমির মালিকানা দিয়ে একটি আধা-পাকা বাড়ি দেয়া হচ্ছে, যা স্বামী-স্ত্রী উভয়ে থাকতে পারবে।

রংপুর-৫ (মিঠাপুকুর) আসনের সংসদ সদস্য জাকির হোসেন সরকার বলেন, মিঠাপুকুরে তালিকাভুক্ত গৃহহীন ও ভূমিহীনদের মাঝে বাড়ি ও জমি প্রদান করা হয়েছে। এরফলে তালিকাভুক্ত কোন মানুষ আর গৃহহীন নেই।

সর্বশেষ

জনপ্রিয়