১৭ ফাল্গুন, ১৪৩০ - ২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ - 29 February, 2024
amader protidin

কপাল পুড়লো ৬৯ এমপির

আমাদের প্রতিদিন
3 months ago
364


ঢাকা অফিস:

অপেক্ষার প্রহর শেষ। ঘোষণা হয়েছে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন। এ নিয়ে দলটির কার্যালয়ে বাঁধভাঙা উচ্ছ্বাস ছিল রোববার দুপুর থেকেই। সন্ধ্যায় বিভিন্ন এলাকায় মিষ্টি বিতরণেরও খবর পাওয়া গেছে। যারা মনোনয়ন পেয়েছেন, তাদের অনুসারীরা বের করেছেন আনন্দ মিছিল। তবে মন খারাপ বাদ পড়াদের। একাদশ জাতীয় সংসদে ছিলেন এমন ৬৯ এমপি এবার পাননি আওয়ামী লীগের মনোনয়ন।

আজ রোববার (২৬ নভেম্বর) বিকেলে বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করেন ওবায়দুল কাদের। একে একে ঘোষণা করেন ২৯৮টি সংসদীয় আসনে নৌকার প্রার্থী।

রংপুর বিভাগে যারা বাদ পড়েছেন

পঞ্চগড়-১ মো. মজাহারুল হক প্রধান ঠাকুরগাঁও-২ আলহাজ মো. দবিরুল ইসলাম রংপুর-৫ এইচ এন আশিকুর রহমান কুড়িগ্রাম-৩ এম এ মতিন কুড়িগ্রাম-৪ মো. জাকির হোসেন গাইবান্ধা-৪ মো. মনোয়ার হোসেন চৌধুরী।

রাজশাহী বিভাগে বাদ পড়লেন যারা

বগুড়া-৫ মো. হাবিবর রহমান নওগাঁ-৩ মো. ছলিম উদ্দীন তরফদার নওগাঁ-৪ মুহা. ইমাজ উদ্দিন প্রাং রাজশাহী-৩ মো. আয়েন উদ্দিন রাজশাহী-৪ এনামুল হক রাজশাহী-৫ মো. মনসুর রহমান সিরাজগঞ্জ-২ মো. হাবিবে মিল্লাত সিরাজগঞ্জ-৪ তানভীর ইমাম সিরাজগঞ্জ-৬ মেরিনা জাহান পাবনা-৪ মো. নুরুজ্জামান বিশ্বাস।

খুলনা বিভাগের বাদ পড়েছেন-

মেহেরপুর-২ মোহাম্মদ সাহিদুজ্জামান ঝিনাইদহ-৩ মো. শফিকুল আজম খাঁন যশোর-২ মো. নাসির উদ্দিন যশোর-৪ রনজিত কুমার রায় মাগুরা-১ মো. সাইফুজ্জামান বাগেরহাট-৪ মো. আমিরুল আলম মিলন খুলনা-১ পঞ্চানন বিশ্বাস খুলনা-৩ বেগম মন্নুজান সুফিয়ান খুলনা-৬ মো. আক্তারুজ্জামান সাতক্ষীরা-২ মীর মোস্তাক আহমেদ রবি সাতক্ষীরা-৪ এস. এম. জগলুল হায়দার।

বরিশাল বিভাগের বাদ পড়লেন যারা

বরগুনা-২ শওকত হাচানুর রহমান (রিমন) বরিশাল-২ মো. শাহে আলম বরিশাল-৪ পংকজ নাথ

ময়মনসিংহ বিভাগে বাদ পড়েছেন-

জামালপুর-১ আবুল কালাম আজাদ জামালপুর-৪ মো. মুরাদ হাসান জামালপুর-৫ মো. মোজাফফর হোসেন শেরপুর-৩ এ. কে. এম. ফজলুল হক ময়মনসিংহ-৩ নাজিম উদ্দিন আহমেদ ময়মনসিংহ-৫ কে এম খালিদ ময়মনসিংহ-৯ আনোয়ারুল আবেদীন খান নেত্রকোনা-১ মানু মুজুমদার নেত্রকোনা-৫ ওয়ারেসাত হোসেন বেলাল।

 

ঢাকা বিভাগে বাদ পড়েছেন

টাংগাইল-৩ আতাউর রহমান খান টাংগাইল-৪ মোহাম্মদ হাছান ইমাম খাঁন টাংগাইল-৫ মো. ছানোয়ার হোসেন টাংগাইল-৮ মো. জোয়াহেরুল ইসলাম কিশোরগঞ্জ-২ নূর মোহাম্মদ মানিকগঞ্জ-১ এ. এম. নাঈমুর রহমান ঢাকা-৫ কাজী মনিরুল ইসলাম

ঢাকা-৭ হাজী মো. সেলিম ঢাকা-১০ শফিউল আলম মহিউদ্দিন ঢাকা-১১ এ কে এম রহমতুল্লাহ ঢাকা-১৩ সাদেক খান ঢাকা-১৪ আগা খান মিন্টু গাজীপুর-৩ মুহাম্মদ ইকবাল হোসেন নরসিংদী-৩ জহিরুল হক ভূঞা মোহন ফরিদপুর-১ মনজুর হোসেন ফরিদপুর-৩ খন্দকার মোশাররফ হোসেন।

সিলেট বিভাগে বাদ পড়েছেন

সুনামগঞ্জ-১ মোয়াজ্জেম হোসেন রতন সুনামগঞ্জ-২ জয়া সেনগুপ্তা সিলেট-৫ হাফিজ আহমদ মজুমদার হবিগঞ্জ-১ গাজী মোহাম্মদ শাহনওয়াজ হবিগঞ্জ-২ মো. আব্দুল মজিদ খান।

এছাড়াও চট্টগ্রাম বিভাগের

ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫ মোহাম্মদ এবাদুল করিম কুমিল্লা-১ মোহাম্মদ সুবিদ আলী ভূঁইয়া কুমিল্লা-৮ নাছিমুল আলম চৌধুরী চাঁদপুর-১ ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর চাঁদপুর-২ মো. নুরুল আমিন চট্টগ্রাম-১ ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন চট্টগ্রাম-৪ দিদারুল আলম চট্টগ্রাম-১২ সামশুল হক চৌধুরী

এবং কক্সবাজার-১ আসনে জাফর আলম বাদ পড়েছেন। জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে ৩৩৬২টি মনোনয়ন ফরম বিক্রি করে আওয়ামী লীগ। ফলে ৩০০ আসনে গড়ে ১১ জনের বেশি মনোনয়নপ্রত্যাশী ছিলেন। সেখান থেকে বেছে নেওয়া হয়েছে একজনকে। এরমধ্যে কুষ্টিয়া ২ এবং নারায়ণগঞ্জ ৫ আসনে প্রার্থী প্রকাশ করেনি আওয়ামী লীগ।

সর্বশেষ

জনপ্রিয়